Tuesday, November 29, 2016

দিনাজপুর-পার্বতীপুর-ঢাকার মধ্যে চলাচলকারী আন্তঃনগর একতা ও দ্রুতযান

রাইসুল ইসলাম, পার্বতীপুর (দিনাজপুর)

দিনাজপুর-পার্বতীপুর-ঢাকার মধ্যে চলাচলকারী আন্তঃনগর একতা এক্সপ্রেস ও দ্রুতযান ট্রেন আগামী ২০১৭ সালের প্রথম দিন থেকে ইন্দোনেশিয়া হ’তে নতুন আমদানীকৃত লাল সবুজ কোচ সমন্বয়ে যাতায়াত শুরু করবে। 
বাংলাদেশ রেলওয়ের পশ্চিমযোন সূত্র জানায়, পশ্চিমযোনের সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ন এ আন্তঃনগর ট্রেন দু’টি গত ২ সেপ্টেম্বর থেকে মিটার গেজের পরিবর্তে ব্রডগেজ রেলপথে চলাচল করছে। সূত্র আরও জানায়, আন্তঃনগর একতা এক্সপ্রেস ও দ্রুতযান এক্সপ্রেস উভয় ট্রেন ১০/২০ কোচ সমন্বয়ে চলাচল করবে। এর মধ্যে এসি শ্লিপিং বাথ থাকবে ১টি, এসি চেয়ার কোচ থাকবে ১টি, পাওয়ারকার থাকবে ১টি, খাবার গাড়ী থাকবে ১টি, বাকী সবগুলো হবে শোভন চেয়ার কোচ। দু’টি ট্রেনই হবে বিলাসবহুল। উভয় ট্রেনে যাত্রী ভ্রমন অধিকতর আরামদায়ক হবে বলে সূত্রটি উল্লেখ করে। এদিকে, উল্লেখিত বিলাসবহুল ট্রেন দুটি পঞ্চগড়-ঠাকুরগাঁ-দিনাজপুর-পার্বতীপুর-ঢাকার মধ্যে চালানোর জন্য এ অঞ্চলের ট্রেন যাত্রীরা জোর দাবি জানিয়েছেন। পঞ্চগড় রেলপথে দীর্ঘদিন পর ডুয়েলগেজ রেল লাইন বসানো হয়েছে। নতুন এ রেলপথে আন্তঃনগর বিলাসবহুল ট্রেন দুটি চালানো হলে পঞ্চগড় ও ঠাকুরগাঁ জেলার সাথে রাজধানী ঢাকার সময় ও দূরত্ব কমে আসবে বলে সংশ্লিষ্টদের অভিমত। 
১২ এলএম ও ১২ এএলএম নতুন বছরে 
আন্তঃনগর একতা ও দ্রুতযান ট্রেন চালাবেন।
মিটারগেজ একতা ও দ্রুতযান ট্রেনের ড্রাইভার ও সহকারী ড্রাইভারগণ আবারও আন্তঃনগর ট্রেন দু’টিতে দায়িত্ব পালন করবেন। আগামী ১ জানুয়ারী থেকে এ সকল ড্রাইভার ও সহকারী ড্রাইভারগণ দিনাজপুর-পার্বতীপুর-ঢাকার মধ্যে চলাচলকারী ট্রেন দুটির ইঞ্জিনে বসবেন। গত ২ সেপ্টেম্বর মিটার গেজ রেল লাইনের পরিবর্তে ব্রড গেজ রেলপথে ট্রেন দুটি চলাচল শুরু হলে মিটার গেজের ইঞ্জিনের ড্রাইভারগণ এক প্রকার কর্মহীন হয়ে পড়েন। এর আগে উল্লেখিত ট্রেন দুটি নিয়ন্ত্রন করতো লালমনির হাট রেল বিভাগ। ব্রডগেজ র‌্যাক দিয়ে ট্রেন দুটি চলাচল শুরু হলে এ ট্রেন দুটি পাকশী রেল বিভাগের নিয়ন্ত্রনে চলে যায়। 
এদিক, গত ১৪ নভেম্বর পশ্চিমযোনের প্রধান প্রকৌশলী মোঃ ইফতিখার হোসেনের সভাপতিতে ডিএমই পাকশী, ডিএমই লালমনিরহাট, এমই সদর, এসএসই পার্বতীপুর, এসএসই লালমনিরহাট ও এসএসএই (ফুয়েল) পার্বতীপুর এই কর্মকর্তাদের এক সভা অনুষ্ঠিত হয় রাজশাহী রেল ভবনে। সভায় আগামী ১ জানুয়ারী থেকে দিনাজপুর-ঢাকার মধ্যে চলাচলকারী আন্তঃনগর একতা ও দ্রুতযান ট্রেনের আগের ১২ ড্রাইভার ও ১২ সহকারী ড্রাইভার দিয়ে ব্রডগেজ লোকোমোটিভ চালানোর সিদ্ধান্ত হয়। সে অনুযায়ী গতকাল সোমবার থেকে তারা পার্বতীপুর-দিনাজপুরের মধ্যে আন্তঃনগর একতা ও দ্রুতযান ট্রেনের ইঞ্জিনে দায়িত্ব পালন শুরু করেছেন। 
এব্যপারে জানতে চাইলে লোকোমোটিভ মাষ্টার (এলএম) একে জিলানী ও সহকারী লোকোমোটিভ মাষ্টার মোঃ বেদানুর রহমান বলেন, গতকাল সোমবার থেকে তারা দায়িত্বপালন শুরু করেছেন। তবে আগামী ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত তাদেরকে দিয়ে পার্বতীপুর-দিনাজপুরের মধ্যে আন্তঃনগর একতা ও দ্রুতযান ট্রেনের শর্ট ট্রিপ করানো হবে। নতুন বছরের ১ জানুয়ারী থেকে মিটারগেজের ১২ ড্রাইভার ও ১২ সহকারী ড্রাইভার ব্রডগেজ রেল পথে চলাচলকারী একতা ও দ্রুতযান ট্রেনের দিনাজপুর-পার্বতীপুর-ঢাকার মধ্যে দায়িত্ব পালন করবেন বলে তারা উল্লেখ করেন। 

শেয়ার করুন

0 facebook: